1- 5000 | 5000-10000 | 10000-15000 | 15000-20000 | 20000-25000 | 25000-30000 | 30000-40000 | 40000-50000 | 50000-plus

অপোর এফ২১ প্রো স্মার্টফোন উন্মোচন


অপোর এফ২১ প্রো স্মার্টফোন উন্মোচন
উদ্ভাবন ও নান্দনিকতার মিশেলে স্মার্টফোন ব্যবহারের অভিজ্ঞতাকে সমৃদ্ধ করার প্রত্যয়ে বিশ্বের শীর্ষস্থানীয় স্মার্টডিভাইস ব্র্যান্ড অপো এফ সিরিজের নতুন ডিভাইস অপো এফ২১ প্রো উন্মোচন করেছে। নতুন এফ২১ প্রো ডিভাইসটির বাজারমূল্য ২৭ হাজার ৯৯০ টাকা। ১১ এপ্রিল থেকে এটি প্রি- অর্ডার করা যাবে এবং ১৮ এপ্রিল থেকে ফার্স্ট সেল শুরু হবে।

রোববার (১০ এপ্রিল) রাজধানীর লা মেরিডিয়ান হোটেলে এক জমকালো অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে এ ডিভাইসটি অবমুক্ত করা হয়। অপোর নতুন এ ফোনটি এই সেগমেন্টের প্রথম মাইক্রোলেন্স ক্যামেরা, যেখানে সনি আইএমএক্স৭০৯ ফ্ল্যাগশিপ সেলফি সেন্সর রয়েছে।

অনুষ্ঠানে ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার, অপো বাংলাদেশ অথোরাইজড এক্সক্লুসিভ ডিস্ট্রিবিউটরের সিইও ড্যামন ইয়াং, অপোর মূল অপারেটর পার্টনার গ্রামীণফোনের প্রতিনিধি এবং অন্যান্য রিটেইল অংশীজনরাও উপস্থিত ছিলেন।

রোমাঞ্চকর মুহূর্তগুলোকে যারা ক্যামেরাবন্দি করতে ভালোবাসেন তাদের জন্য ধারাবাহিকভাবে নতুন ও উদ্ভাবনী ক্যামেরা প্রযুক্তি নিয়ে আসার লক্ষ্যে কাজ করছে অপো। এফ২১ প্রো ডিভাইসটি এমনভাবে ডিজাইন করা হয়েছে, যার মাধ্যমে অদেখা সৌন্দর্যকে দেখা যাবে। রিয়ার ক্যামেরা মাইক্রোস্কোপিক লেভেল, টেক্সার, শেপ এবং সাইজের সমন্বয় ফোনটিকে বেশ ব্যতিক্রমী করে তুলেছে। ব্যবহারকারীদের পৃথিবীকে নতুনভাবে দেখতে সাহায্য করবে এ ফোনটি। কারণ, এ ডিভাইসটি ৩০x ম্যাগনিফিকেশন পর্যন্ত মাইক্রোলেন্স সাপোর্ট করে, যা দিয়ে চমৎকার ইমেজ ও ভিডিও ধারণ করা যাবে। আর এর মাধ্যমে মানুষ তাদের কৌতূহল মেটানোর মাধ্যমে নিজেদের সৃজনশীলতার বহিঃপ্রকাশ ঘটিয়ে স্মার্টফোন ফটোগ্রাফিকে নতুন উচ্চতায় নিয়ে যেতে পারবে।

অপো এফ২১ প্রো ডিভাইসটির সামনের ক্যামেরায় ব্যতিক্রমী ফিচার রয়েছে, সামনের ক্যামেরায় আইএমএক্স৭০৯ (সনি আইএমএক্স৭০৯ দেশের প্রথম সেলফি সেন্সর, যা অপো ও সনি যৌথভাবে তৈরি করেছে) ও আরজিবিডব্লিউ সেন্সর টেকনোলজির ওপরে গুরুত্ব দেওয়া হয়েছে। ক্রিসপার ইমেজের জন্য আরজিবিডব্লিউ (রেড, গ্রিন, ব্লু ও হোয়াইট) পিক্সেল ডিজাইন সহায়ক ভূমিকা রাখবে এবং লাইট সেনসিভিটিও বৃদ্ধি করবে। নতুন আরজিবিডব্লিউ-তে রয়েছে যুগান্তকারী পিক্সেল অ্যারে ডিজাইন, যা দিয়ে দৃশ্যমান আলোর পুরোপুরি স্পেকট্রাম ধারণ করা যাবে, যার আলোর তীব্রতা হবে তুলনামূলক সেনসেটিভ। আইএমএক্স৭০৯ স্ট্যান্ডার্ড আরজিজিবি সেন্সরের চেয়ে ৬০ শতাংশ বেশি আলো ধারণ করতে পারবে, পাশাপাশি নয়েজ কমাবে ৩৫ শতাংশ পর্যন্ত। যার ফলে অল্প আলোতেও ছবি হবে আরও বেশি নিখুঁত ও উজ্জ্বল। অপো এফ২১ প্রোর সেলফি এইচডিআর সুবিধা ও আইএমএক্স৭০৯ সেন্সর ব্যবহারীদের নিখুঁত, উজ্জ্বল ও ঝকঝকে ছবি ধারণ করার সুযোগ করে দিবে, অনেক আলোতেও ছবি আসবে প্রাণবন্ত।

অপো এফ২১ প্রো ডিভাইসটিতে ইনোভেশন ও আর্টের সমন্বয় রয়েছে, যেখানে ডিজাইনে নতুনত্ব আনার ক্ষেত্রে টপ-নচ ফিচার ব্যবহার করা হয়েছে। সেলফ-ডেভেলপড ফাইবারগ্লাস-লেদার ডিজাইন ও অরবিট লাইট ডিজাইনের এ ডিভাইসটি নিশ্চিতভাবে মানুষের চোখকে ধাঁধিয়ে দিবে। সানসেট-অরেঞ্জ রঙের এফ২১ প্রো ডিভাইসটি মানুষের প্রতিদিনের লাইফস্টাইলে নতুন মাত্রা যোগ করবে। বোল্ড ফ্ল্যাট-এজ আউটলুক সহ স্লাইসড ক্যামেরা ডিজাইনের সমন্বয়ে তৈরি এ ডিভাইসটি দেখতে বেশ আকর্ষণীয়। লিচি গ্রেইন লেদার ম্যাটেরিয়ালের এ ডিভাইসটি পানি প্রতিরোধী এবং আঁচড়ও পড়বে না। অন্যান্য ভেগান লেদার ফিনিশের চেয়ে ফাইবারগ্লাস-লেদার পাতলা ও দীর্ঘস্থায়ী। লিচি গ্রেইন টেক্সার টাচ করার ক্ষেত্রে বেশ স্মুদ। পপ অব কালারস ও অত্যাধুনিক প্রযুক্তি দ্বারা অনুপ্রাণিত হয়ে তৈরিকৃত ডিজাইনের অপো এফ২১ প্রো ব্যবহারকারীদের ফোন ব্যবহারের ব্যতিক্রমী অভিজ্ঞতা প্রদান করবে।

নতুন এফ২১ প্রো ডিভাইসটিতে কোয়ালকম® স্ন্যাপড্রাগন™ ৬এনএম অক্টা-কোর প্রসেসর ও র‌্যাম এক্সপেনশন প্রযুক্তিসহ (৫জিবি পর্যন্ত র‌্যাম এক্সপেনশন সুবিধা পাওয়া যাবে) ৮জিবি র‌্যাম ও ১২৮ জিবি রম ব্যবহার করা হয়েছে। এছাড়াও, ডিভাইসটিতে চার হাজার ৫০০ মিলিঅ্যাম্পিয়ার ব্যাটারি সুবিধাসহ ৩৩ ওয়াট সুপারভুক চার্জিং প্রযুক্তি, ৬.৪ ইঞ্চি ৯০ হার্জ অ্যামোলেড ডিসপ্লে রয়েছে। বাংলাদেশে অপো এফ২১ প্রো ডিভাইসটিই অপোর প্রথম ফোন যেখানে আপগ্রেডেড কালারওএস১২ সিস্টেম রয়েছে। নতুন ওএস একটি আন্তর্জাতিক পদ্ধতির ওপর ভিত্তি করে সম্পূর্ণ নতুন কাঠামোর বৈচিত্র্যের ওপর জোর দেয়। কালারওএস১২ এর পেজ লেআউট এবং ইন্টার‌্যাকশনগুলো আরও জায়গা তৈরি করার জন্য পুনরায় ডিজাইন করা হয়েছে। এর ফলে ব্যবহারকারীদের জন্য ইন্টারফেসটি আরও ব্যবহার উপযোগী হয়েছে, যা ব্যবহারকারীদের ফোন ব্যবহারের অভিজ্ঞতাকে সমৃদ্ধ করবে।

অনুষ্ঠানে ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার বলেন, ডিজিটাল রূপান্তরের সুবিধাকে কাজে লাগিয়ে উন্নত প্রযুক্তির ডিভাইস উন্মোচনের মাধ্যমে মানুষের জীবনে ইতিবাচক ভূমিকা রাখার প্রয়াসে অপো যে ভূমিকা রাখছে তা প্রশংসনীয়।

ফোন উন্মোচন অনুষ্ঠানে অপো বাংলাদেশ অথোরাইজড এক্সক্লুসিভ ডিস্ট্রিবিউটর এর সিইও ড্যামন ইয়াং বলেন, স্মার্ট ডিভাইসে ইনোভেশন ও আর্টের মিশেলে প্রযুক্তিগত উৎকর্ষতা নিয়ে এসে মানুষের স্মার্টফোন ব্যবহারের অভিজ্ঞতাকে সমৃদ্ধ করাই অপোর লক্ষ্য। আকর্ষণীয় ডিজাইন ও অত্যাধুনিক ফিচারের জন্য অপোর এফ সিরিজের লাইফস্টাইল সেন্ট্রিক ডিভাইসগুলোর বেশ সুনাম রয়েছে। এফ২১ প্রো ডিভাইসটিও এর ব্যতিক্রম নয়।

তিনি আরও বলেন, উন্নত ও সেরা প্রযুক্তির মাধ্যমেই এ ডিভাইসটি তৈরি করা হয়েছে, যা ব্যবহারকারীর জীবনধারায় ইতিবাচক ভূমিকা রাখবে। বিভিন্ন ধরনের প্রযুক্তিগত উদ্ভাবনের মাধ্যমে এ ডিভাইসটি বিভিন্ন উপায়ে মানুষের জীবনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে।